blog

আসুন আজ জেনেনি আঙুরের উপকারিতা গুলো।

একটা ফল যা সবার খুব প্রিয় বা পছন্দের, তা হল আঙুর। যখন আমি ছোট ছিলাম এমন অনেক ফল ছিল যা খুশি মনে খেতাম না। মা – বাবা জোড় করে প্রায় বেশির ভাগ সময় খাওয়াতো। কিন্তু মা যখনই এক গোছা আঙুর হাতে ধরিয়ে দিত, তখনই খুশি মনে খেয়ে নিতাম। বিশেষ করে টিভি দেখতে দেখতে আঙুর খাওয়ার মজাই আলাদা।

আঙুরের উপকারিতাঃ

১) ক্যান্সারের থেকে সুরক্ষাঃ 

আঙুরে থাকা কিছু যৌগিক পদার্থ ক্যান্সের বিরুদ্ধে লড়াই করার পক্ষে সক্ষম। বিশেষ করে ব্রেস্ট ক্যান্সার প্রতিরোধ করার কিছু উপাদান আঙুরে রয়েছে।

অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট সমূহ খাবার ক্যান্সারের প্রতিরোধে সক্ষম বলে জানা গিয়েছে। আঙুর অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট যুক্ত খাবার হিসেবে প্রমাণিত।

২) আঙুর রক্তে  কোলেস্টেরলের মাত্রা কমায়ঃ 

বাজারে অনেক খাবার আছে যা দাবী করে যে তাতে কোলেস্টেরলের মাত্রা শূন্য।

আর আঙুরে কোলেস্টেরলের মাত্র যে শূন্য তা প্রমাণিত। তাই খাবারের তালিকায় আজই এই ফলটি যোগ করে নিন।

৩) কিডনির সমস্যা রোধ করেঃ 

আঙুর ইউরিক অ্যাসিডের মাত্রা কমাতে সাহায্য করে। ফলে কিডনির সমস্যা কম দেখা দেয়।

৪) টক ঢেকুরঃ 

খাবার ভালো ভাবে হজম করার ক্ষেত্রে আঙুরের ভূমিকা রয়েছে। ফলে টক ঢেকুর হওয়ার সম্ভাবনা অনেক কম থাকে।

বদহজম থেকে মূলত এই সমস্যা হয়। আঙুর খেলে এই সমস্যা থেকে রেহাই পাওয়া যেতে পারে।

৫) ভুলে যাওয়া রোগঃ 

ভুলে যাওয়ার সমস্যা অনেকেরই থাকে আর আঙুর নিয়মিত খেলে তা কম হতে পারে। কারণ আঙুর মস্তিষ্কের মধ্যে পজেটিভ এনার্জি প্রদান করে। নিউরলজিক্যাল নানা সমস্যা থেকে আপনাকে দূরে রাখবে আঙুর।

৬) রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণঃ 

নুন খেলে ব্লাড প্রেসার হাই হয়ে যায় কারণ এতে অতিরিক্ত মাত্রায় সোডিয়াম থাকে। আর এর ঠিক বিপরীত হল আঙুর। কারণ এতে পটাসিয়াম থাকে ভালো মাত্রায়। যা সোডিয়ামের ক্ষতিকর মাত্রা কমাতে সাহায্য করে।

আঙুর খেলে ব্লাড প্রেসার নিয়ন্ত্রণে থাকবে, কারণ এতে ভরপুর পটাসিয়াম রয়েছে।

৭) কোষ্ঠকাঠিন্যঃ 

জল ও ফাইবার আঙুরে রয়েছে বিপুল মাত্রায়। তাই কোষ্ঠকাঠিন্যর সমস্যা থেকে আপনি অনেক দূরে থাকতে পারেন আঙুর খেলে।

৮) ডায়াবেটিসঃ 

২০১৩ সালের একটি গবেষণা থেকে জানা গিয়েছে এমন কিছু ফল আছে যাদের রস পান করলে রক্তে চিনির মাত্রা কম হয়ে টাইপ ২ ডায়বেটিস নিয়ন্ত্রণে থাকে। আঙুর সেরকম একটি ফল।

৯) চোখের জন্য ভালোঃ 

বলা হয় যে আঙুর খেলে তা চোখের জন্য ভালো। গবেষণাতে তা প্রমাণিত। চোখের নানা রকমের রোগের থেকে আঙুর চোখকে সুরক্ষিত রাখতে সাহায্য করে।

১০) হাঁপানি রোগঃ

হাঁপানির সমস্যা যাদের আছে তাদের জন্য আঙুর ফল খাওয়া খুবই উপকারি। আঙুর ফুসফুসে আদ্রতা বাড়াতে সাহায্য করে। ফলে ফুসফুস সংক্রমিত হয় না। হাঁপানির সমস্যাও কমে।

ত্বকের জন্য-

১) বয়েসের ছাপঃ 

দূর করে সহজেই আঙুর। ত্বকে বয়েসের ছাপ পরলে তা হ্রাস হয় আঙুর খেলে।

২) ব্রণ দূর করতেঃ

সাহায্য করে আঙুর। আঙুরে থাকা একটি যৌগ মুখের থেকে দ্রুত ব্রণ সরিয়ে দেয়। এর সাথে সাথে মুখের হারানো জেল্লা ফিরিয়ে আনে।

৩) ত্বক নরম ও মোলায়েম রাখেঃ 

ত্বক নরম বা মোলায়েম রাখার জন্য ভিটামিন ই খুবই জরুরি। আর আঙুর ভিটামিন ই তে ভরপুর। ফলে আঙুর খেলে ত্বক সুন্দর ও নরম থাকে।

আরও ভালো হয় আঙুর দিয়ে মুখ ৫ মিনিট মত ম্যাসাজ করে ঠাণ্ডা জল দিয়ে ধুয়ে নিন সপ্তাহে দুবার। দেখবেন মাখনের মত নরম হয়ে গেছে স্কিন।

Share this post

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


%d bloggers like this: